বাংলাদেশে MNP সেবার সফলতা কতটুকু।

বাংলাদেশে Mobile number portability (MNP) এর যাত্রা খুব বেশি দিনের না। এইতো কয়েক মাস আগে ২০১৮ শেষের দিকে চালু হয় MNP সেবা। MNP সেবা চালু হবার পর আদৌও কি জনগণ এর থেকে উপকৃত হতে পারছে? আর যদি হয়ে থাকে তবে কতটুকু? আজ এই নিয়েই কিছু কথা বলার চেষ্টা করবো।

MNP কি?

MNP এর পূর্ণ শব্দ বাংলাই বল্লে হয় মোবাইল নাম্বার বহনযোগ্যতা। আসলে বাংলাই এর অর্থ করলে সহজ বোধগম্য অর্থ হয় না। সহজ ভাবে বলতে গেলে বলা যায়, নাম্বার এর কোন পরিবর্তন না ঘটিয়ে শুধু অপারেটর নেটওয়ার্ক পরিবর্তন করা। উদাহরন সরূপ আপনি হয়তো ব্যবহার করেন ০১৭১২৩৪৫৬৭৮ যা সাধারনত গ্রামীন নাম্বার বুঝা যায়। কিন্তু আপনি যদি গ্রামীন অপারেটর নেটওয়ার্ক থেকে বের হয়ে টেলিটক অপারেটরের নেটওয়ার্কে যেতে চান, তবে MNP সেবা ব্যবহার করে আপনি খুব সহজেই তা করতে পারেন। যার ফলে আপনার ০১৭১২৩৪৫৬৭৮ নাম্বারটি আর গ্রামীন অপারেটর হিসেবে থাকবে না। অর্থাৎ একই নাম্বার থাকবে কিন্তু সেই নাম্বারটি এখন MNP সেবা ব্যবহার করার ফলে টেলিটক এর নিটওয়ার্কে ব্যবহার হবে।

mnp

MNP সেবা কিভাবে কাজ করে?

MNP বিষয়টি খুব একটা জটিল বিষয় না। এই সেবাটি অনেক দেশেই চালু রয়েছে। পার্শ্ববর্তী দেশ ইন্ডিয়াতেও MNP সেবা চালু রয়েছে। আমরা হয়তো মোবাইলের সেটিং-এ ফরওয়ার্ডিং শব্দটি দেখে থাকবো। জি হ্যাঁ, MNP সেবাটি ফরওয়ার্ডিং সিষ্টেমে কাজ করে।

MNP সেবার সফলতা কতটুকু?

বাংলাদেশে MNP চালু হওয়া প্রায় ৫ মাস পার হয়ে গেছে। MNP সেবার চালু হবার ফলে সাধারন জনগণ কতটুকু উপকৃত হয়েছে? ধারনা করা হয়েছিলো MNP সেবা চালু হবার পর সকল অপারেটরদের মাঝে একটা কম্পিটিশন চালু হবে, তাদের নিজেদের গ্রাহক ধরে রাখতে এবং অন্য অপারেটরদের গ্রাহক পাবার জন্য। ধারনা করা হয়েছিলো, কলরেট, ইন্টারনেট ডেটা রেট সহ সকল সেবার রেট হ্রাস পাবে। কিন্তু তা কি আদৌ হয়েছে? না কোন সেবার মান বেড়েছ, আর না কোন সেবার রেট কমেছে। উপরুন্ত কলরেট বেড়েছে।

আমি নিজে ২০১৮ অক্টোবারের ২৯ তারিখ অপারেটর চেন্জ করে অন্য অপারেটরের নেটওয়ার্কে গিয়েছি। কিন্তু নেটওয়ার্ক পরিবর্তন করার কারণে উপকার তো হয়ইনি উল্টো ঝামেলাই বেশি পড়তে হয়েছে।

MNP সেবার সুবিধা ও অসুবিধা

MNP সেবার সুবিধা ! “কোন সুবিধাই নেই বাংলাদেশের MNP সেবাই”। অর্থাৎ বাংলাদেশের যে MNP সেবা তা ব্যবহার করার চেয়ে না করাতেই মঙ্গল। কারন MNP পদ্ধতি চালু হবার ফলে অপারেটরদের কম্পিটিশনের ফলে বাইরের দেশ গুলোর জনগণ যে সুবিধা ভোগ করতে পারে তার এককোনাও বাংলাদেশে নাই।
এখন আসি ‍অসুবিধার দিকে। ৫ মাস পার হবার পরেও MNP সেবার মান পরিপূর্ণতা পাইনি। আমি যে সকল অসুবিধা পেয়েছি এখানে তা উল্লেক্ষ করছি। MNP করার পর থেকে অনেকে ম্যাসেজ দিলে আমার নাম্বারে ম্যাসেজ আসে না। বিভিন্ন ওয়েবসাইট যেমন- টুইটার, ফেসবুক সহ অন্যান্য সাইট থেকে সিষ্টেমের ম্যাসেজ আসে না। যার ফলে আমার অনেক ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে। এখন নতুন সমস্যা হচ্ছে মোবাইল অন থাকলেও মাঝে মাঝে কোন কল আসে না। কম্পিলিন দেওয়া হলে তারা বলে এই নিয়ে নাকি কাজ করা হচ্ছে। এত সব অসুবিধার কারণে পুর্বের অপারেটর নেটওয়ার্কে ফিরে যাওয়া ছাড়া আর কোন উপায় নাই।

তাই আমার মতে বাংলাদেশের যে MNP সুবিধা, তা ব্যবহার করে শুধু শুধু বাড়তী ঝামেলা মাথাই নেওয়ার কোন মানে হয় না। তারপরেও নিজে থেকে টেষ্ট করতে চাইলে তা হবে আপনার একান্ত ব্যপার।

ধন্যবাদ MNP , ধন্যবাদ BTRC ।

মন্তব্য